Home / প্রযুক্তি বিষয়ক খবর / ওয়াটারলু বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজ্ঞানীরা কৃত্রিম মস্তিষ্ক তৈরি করলেন!

ওয়াটারলু বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজ্ঞানীরা কৃত্রিম মস্তিষ্ক তৈরি করলেন!

সম্প্রতি কানাডার ওয়াটারলু বিশ্ববিদ্যালয়ের স্নায়ুবিদ ও সফটওয়্যার প্রকৌশলীরা মিলে কৃত্রিম মস্তিষ্ক তৈরি করতে সক্ষম হয়েছেন। যদিও এটি সত্যিকারের আমাদের মস্তিষ্কের মত দেখতে নয়, বরং মস্তিষ্কের একটি মডেল, কিন্তু মস্তিষ্কের মতনই জটিল সমস্ত কাজ করতে পারবে, যেমন এর মধ্যে রয়েছে ছবি আঁকা, গুণতে পারে বা প্রশ্নের উত্তর দেওয়া। এই মস্তিষ্কের সঙ্গে যুক্ত রয়েছে প্রায় পচিশ লক্ষ কৃত্রিম নিউরন বা স্নায়ু, যা অনেকটা আমাদের মস্তিষ্কের মতনই কাজ করবে। কৃত্রিম এই মস্তিষ্কটির নাম স্পুন Spaun বা Semantic Pointer Architecture Unified Network । গবেষকেরা মস্তিষ্কের সঙ্গে প্রায় ৮০০ পিক্সেলের একটি ডিজিটাল চোখ ও মডেল রোবট বাহু যুক্ত রয়েছে। চোখে দেখে মস্তিষ্কের যে অনুভূতি জাগবে তা মস্তিষ্ক বিশ্লেষন করতে পারবে। এবং সেই বিশ্লেষন থেকে পরে রোবোটিক হাতটি ব্যবহার করে ছবি আকতে পারবে। মজার ব্যাপার হল, একটি সাধারণ বুদ্ধিমত্তার পরীক্ষায় এই কৃত্রিম মস্তিষ্কটি পরীক্ষায় পাস করতে পেরেছে। বিজ্ঞানীরা এর কর্মক্ষমতা দেখে সত্যেই অবাক। সিঙ্গাপুর থেকে ড. মশিউর রহমান

তথ্যসূত্র:

  • http://www.rawstory.com/rs/2012/12/02/artificial-brain-passes-basic-iq-test/
  • http://blogs.smithsonianmag.com/ideas/2012/12/a-more-human-artificial-brain/
  • http://www.tgdaily.com/general-sciences-features/67819-artificial-brain-spaun-passes-iq-tests
  • http://www.huffingtonpost.com/2012/11/30/artificial-brain-spaun-software-model_n_2217750.html

ভিডিও:

  • http://www.youtube.com/watch?v=P_WRCyNQ9KY
  • http://www.youtube.com/watch?v=dLTt8Za3MVY
  • http://www.youtube.com/watch?v=FhosaQSWCFw

 

About ড. মশিউর রহমান

ড. মশিউর রহমান বিজ্ঞানী.অর্গ এর cofounder যার যাত্রা শুরু হয়েছিল ২০০৬ সনে। পেশাগত জীবনে কাজ করেছেন প্রযুক্তিবিদ, বিজ্ঞানী ও শিক্ষক হিসাবে আমেরিকা, জাপান, বাংলাদেশ ও সিঙ্গাপুরে। বর্তমানে তিনি কাজ করছেন ডিজিটাল হেল্থকেয়ারে যেখানে তার টিম তথ্যকে ব্যবহার করছেন বিভিন্ন স্বাস্থ্যসেবার জন্য। বিস্তারিত এর জন্য দেখুন: DrMashiur.com

Check Also

চিকুনগুনিয়া এর উপর গবেষনা প্রবন্ধ প্রকাশিত হল

চিকুনগুনিয়া অসুখটি বাংলাদেশের স্বাস্থ্যক্ষেত্রে একটি বড় মহামারি এর মতন এসেছিল। কিন্তু ব্যাপারটির উপর বৈজ্ঞানীক ভাবে …

ফেসবুক কমেন্ট


মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।