Home / কিভাবে কাজ করে? / মাইক্রোওয়েভ ওভেন কিভাবে কাজ করে

মাইক্রোওয়েভ ওভেন কিভাবে কাজ করে

আমাদের আজকের নিত্যনৈমিত্তিক কাজে মাইক্রোওভেন বেশ প্রয়োজনীয় হয়ে উঠেছে৷ দিনদিন বাংলাদেশেও এর ব্যাবহার বাড়ছে৷ আগে যেখানে ফ্রিজ ছিল মধ্যবিত্ত পরিবারের জন্য একটি স্বপ্নের অংশ, আজ সেখানে মাইক্রোওয়েভ ওভেন কিনবার জন্য মানুষ মধ্যবিত্তরা ভাবছে৷ কিন্তু কিভাবে কাজ করে এই মাইক্রোওয়েভ ওভেন৷ সাধারণ ওভেনে যেখানে খাবারকে সাধারণভাবে গরম করা হয় সেখানে মাইক্রোওয়েভ ওভেন দিয়ে খুব দ্রুত কিভাবেই বা খাবারকে গরম করা হয়?
মাইক্রোওয়েভ ওভেন দিয়ে যে খাবার গরম করা হয় তার মধ্যে পানির অংশ থাকতে হবে৷ মাইক্রোওয়েভ ওভেন দিয়ে খুব দ্রুত পরিবর্তনশীল ইলেকট্রোম্যাগনেটিক ফিল্ড দেয়া হয়৷ পানির অনুতে ধনাত্মক ও ঋণাত্মক অংশ থাকে৷ মাইক্রোওয়েভ ওভেন এর এইলেকট্রোম্যাগনেটিক ফিল্ড এই পানির কণাগুলিকে খুব দ্রুত দিক পরিবর্তন করতে থাকে, সাধারণত প্রতিসেকেন্ডে ২৪৫০ মিলিয়ন বার কাপাতে সম হয়৷ এত দ্রুত পানির কণাগুলি কাপতে থাকলে সেই শক্তি দিয়ে তা গরম হয়৷ খাবারের ভিতর যে পানি থাকে তাই গরম হয় এবং এইভাবেই পুরো খাবারটি গরম হয়৷ আসলে খাবারের ভিতর যে পানি থাকে তাই গরম হয়৷ তাই যে সমস্ত খাবারে খুব কম পানি থাকে তা তুলনামূলক ভাবে কম গরম হয়৷ কাচের গ্লাস কিংবা চিনামাটির প্লেট মাইক্রোওয়েভ ওভেন এ গরম হয়না, কেননা এইগুলির মধ্যে পানির কণা থাকে না৷ প্লাস্টিক ও কাগজ জাতীয় বস্তুর ভিতর দিয়ে মাইক্রোওয়েভ চলে যায় বলে গরম হয়না৷ আর লোহা কিংবা ধাতু জাতীয় বস্তু মাইক্রোওয়েভ প্রতিফলন করে বলে খাবার গরম করবার সময় চামচ কিংবা কোন ধাতু দিতে হয়না৷
সাধারণ ওভেন এর থেকে সবথেকে যে সুবিধা কাজ করে তা হল, সাধারণ ওভেনে বাহিরের দিকে খাবার গরম হলেও মাইক্রোওয়েভ ওভেন খাবারের ভিতরও গরম করে বলে পুরো খাবারটি
আজকাল নতুন ধরনের মাইক্রোওয়েভ ওভেন বাজারে এসেছে যা দিয়ে শুধু মাত্র খাবার গরম করাই নয় খাবার তৈরী করা যায়, সামনে এমনও দিন আসবে, মাত্র একমিনিটে ওভেন দিয়ে তৈরী করে ফেলতে পারবেন পোলাও, কোরমা জাতীয় খাবার৷

About ড. মশিউর রহমান

বর্তমানে সিঙ্গাপুরে একটি গবেষনাকেন্দ্র বৈজ্ঞানিক হিসাবে কর্মরত।

Check Also

অগ্নি নির্বপক যন্ত্র সমন্ধে কিছু তথ্য

ফায়ার এক্সটিংগুইশার একটি অগ্নি নির্বাপক যন্ত্র। বর্তমানে অগ্নিসংযোগ এর ঘটনা অনেক ঘটছে। সময়মত এ যন্ত্রটিকে …

ফেসবুক কমেন্ট


  1. biggani.com সকল তথ্য আপডেট চাই।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।